Pre-Wedding

– “Dirty mind! Will observe your self control then. I anticipate a birthday celebration before first anniversary!”
– “A blessing or a curse? Cousins are planning to put cam in our room.”

Author ~ Arijit Ganguly
#AnariMinds #ThinkRoastEat

বিলম্বিত লয়

সে যাইহোক, আজ সন্ধেবেলা সায়ন এসে বসলো পার্কের কোণার দিকের বেঞ্চ টায়। সকালে এই অঞ্চলের অনেকেই আসে মর্নিং ওয়াক করতে, আবার বিকেলের দিকটায় প্রেমিক যুগল দের ভিড়। এদের সবার নজর এড়িয়ে কোণার দিকের বেঞ্চ টাই সায়নের বড় পছন্দের, ওকে কেউ দেখতে পায়না, কিন্তু ও প্রায় সবাইকে দেখতে পায়।

লেখক ~ অয়ন ভট্টাচার্য
#AnariMinds #ThinkRoastEat

স্বপ্ন

কিন্তু উপায় নেই, গোয়া তাকে যেতেই হবে আসলে ওর বস মানে মিঃ ডিসুজা এই গোয়া যাওয়ার প্ল্যান টা করেছেন তাই না গেলে খারাপ দেখাবে, তাছাড়া সামনেই ওর প্রমোশন পাওয়ার একটা সুযোগ আছে। মা’কে দেখতে যাব এই অজুহাত দিয়ে প্রমোশন পাওয়ার সুবর্ণ সুযোগ টা হাত ছাড়া করতে চায়না।

লেখক ~ অয়ন ভট্টাচার্য
#AnariMinds #ThinkRoastEat

শক্তি

ঘরের বাইরে বেরিয়ে যায় পাখি। নিজের রূপকে সাদরে গ্রহণ করে সে, কারণ এই সময় যদি সে নিজে ভেঙে পরে তাহলে মা বাবা কে সামলাবে কে? তার কোনো দুঃখ নেই, সে হারতে শেখেনি কোনো দিন। আর পাখি জানে একমাত্র সে নিজেই যে নিজেকে ছেড়ে কোনো দিন যাবে না।

লেখিকা ~ পায়েল ব্যানার্জী
#AnariMinds #ThinkRoastEat

যখন আনাড়ি ছিলাম

এই কিক টাই দরকার ছিল। ওয়াটস্যাপ-এ মেসেজ করলাম ভিমু ওরফে আমাদের স্কুলের বন্ধু অভিমন্যু কে। বলতেই দিয়ে দিল নাম্বার টা। কারণ অবশ্য জিজ্ঞেস করল একবার। কিন্তু জবাব দেওয়ার মতো সময় ছিল না।

লেখক ~ অরিজিৎ গাঙ্গুলি
#AnariMinds #ThinkRoastEat

হোক না আবার

লেখক ~ অরিজিৎ গাঙ্গুলি
#AnariMinds #ThinkRoastEat #Rhymics

ভূত আমার পূত – শেষ গল্প ~ কার্নিশ

এই ঘটনার পর থেকেই অ্যাপার্টমেন্ট জুড়ে আর এক কাণ্ড শুরু হল। রোজ রাত ৩ টে থেকে ৩:১০ এর মধ্যে সবার ফ্ল্যাটের বাইরের গ্রিলের তালা বেশ ঝনঝন করে নড়ে উঠতে থাকল। প্রথমে সবাই ভেবেছিলেন যে মাঝরাতে কারুর কোনও এমার্জেন্সি হয়েছে হয়তো। কিন্তু পরে সোসাইটির মিটিং-এ জানা গেল ওইসময় কেউই বাইরে বেরোয় না।

লেখক ~ অরিজিৎ গাঙ্গুলি
#AnariMinds #ThinkRoastEat

ভূত আমার পূত – গল্প ৩ ~ কড়ে আঙুল

যখন কেউ পজেস্ড হয়, মানে কাউকে ভুতে ধরে, তখন তার কড়ে আঙুলের ডগা চেপে ধরে থাকলে আত্মা সেই দেহে বেশিক্ষণ থাকতে পারে না, বেরিয়ে চলে যায়। এই বিশ্বাস চরণের বাড়ির লোকেদের, আগেও এটা নাকি অনেকবার প্রমাণিত হয়েছে। বোন এই জিনিসটা করার সাথে সাথে নতুন বৌয়ের কেমন একটা অস্বস্তি লক্ষ্য করা গেল।

লেখক ~ অরিজিৎ গাঙ্গুলি
#AnariMinds #ThinkRoastEat

ভূত আমার পূত – গল্প ২ ~ ফরাসী হোটেল

হৃৎপিণ্ড টা খুলে হাতে চলে আসবে মনে হচ্ছে। এক মুহূর্তের জন্য মনে হল ব্যালকনি দিয়ে নিচে নামার কোন রাস্তা পাওয়া যায় কিনা। পাশের ব্যালকনি টাও বেশ দূরে। বেশ খানিকটা সাহস সঞ্চয় করে আমার নর্মাল খাট ওয়ালা ঘরের দরজার হাতল ঘোরালাম, খুলে গেল। পর্দা সরিয়ে ঘরে ঢুকলাম।

লেখক ~ অরিজিৎ গাঙ্গুলি
#AnariMinds #ThinkRoastEat